Published: February 14, 2020

সৈয়দপুর ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের বাৎসরিক বনভোজন ছিলো আনন্দ উল্লাসে ভরপুর


জাহিদুল হাসান জাহিদ-ফাল্গুনের শুরুতে ভালোবাসা দিবসের প্রথম পহরে শিক্ষক শিক্ষার্থী অভিভাবকের সংমিশ্রণে আনন্দ উল্লাসে নীলফামারীর সৈয়দপুর ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের বাৎসরিক বনভোজন ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার(১৪ফেব্রুয়ারি) পিকনিক স্পট স্বপ্নপুরীতে দিনব্যাপী সৈয়দপুর ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের আয়োজনে বনভোজন ও পুরুস্কার বিতরণ করা হয়।

বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ মো.শাবাহাত আলী সাব্বুর সভাপতিত্বে বিকেলে বিনোদনমূলক অনুষ্ঠান শিক্ষার্থীদের যেমন খুশি সাজ ও বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের বাৎসরিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরুস্কার এবং আমন্ত্রিত অতিথিদের মাঝে বিশেষ সম্মাননা উপহার প্রদান করা হয়।
এসময় আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন,উপদেষ্টা অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক লুৎফর রহমান,সৈয়দপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মিস্টার করিম,সহ সভাপতি হাজী মোকসুদ আলম,সাংবাদিক গোপাল চন্দ্র, নর্থবেঙ্গলনিউজ প্রকাশক ও সম্পাদক মেহেরুন্নেসা প্রমুখ।
শিক্ষার পাশাপাশি আনন্দ উল্লাসের অপর নাম সৈয়দপুর ইন্টারন্যাশনাল স্কুল।এই বিদ্যালয়ের অনুষ্ঠান মানে আনন্দ উল্লাসের মহা মেলা।তাও আবার বনভোজন।এখানে তো আনন্দ উল্লাসের কোনো ঘাটতি নেই।এবারে স্কুলের পক্ষ থেকে বাৎসরিক বনভোজনে শিক্ষক,শিক্ষার্থী,অভিভাবক ও আমন্ত্রিত অতিথি মিলে প্রায় আটশতাধিক ব্যক্তি তেরটি বাস কয়েকটি মাইক্রোবাস প্রাইভেটকারের বিশাল বহর নিয়ে পিকনিক স্পট স্বপ্নপুরীতে আসেন।
পথমাঝে উন্নতমানের সকালের নাস্তা খেয়ে শিক্ষার্থী অভিভাবক সারা দিন পিকনিক স্পটের বিভিন্ন রাইটস ও দর্শনীয় স্থান ঘুরাঘুরি করে আনন্দ উপভোগ করেন। দুপুরের খাবার সেরে বিকেলে যেমন খুশি সাজ,র‍্যাফেল ড্র পুরুস্কার বিতরণীর মধ্য দিয়ে বাৎসরিক বনভোজনের অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *